ভিন্ন স্বাদের খবর

সাতক্ষীরায় রঙিন মাছের রেস্তরা

বিদেশের কোনো রেস্তোরাঁ নয়। দেশেই এক অন্যরকমের অনুভূতি নিতে পারবেন সাতক্ষীরা শহরতলির বকচরা বাইপাস সড়কের মৌবন রেস্টুরেন্টে। 

ব্যতিক্রমী এই রেস্তোরাঁয় পানির মধ্যেই পাতা রয়েছে চেয়ার-টেবিল। আর গোড়ালি পর্যন্ত পানিতে ঘুরে বেড়াচ্ছে ছোট ছোট বিভিন্ন রঙের মাছ। বিশেষ করে শিশুরা খুবই উপভোগ করছে এই পরিবেশ। আর বড়দেরও হচ্ছে নতুন অভিজ্ঞতা। এসব অভিজ্ঞতার বর্ণনা ও ছবি সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে অনেকেই শেয়ার করছেন।

সাতক্ষীরায় শহরের কোলাহল ছাড়িয়ে বিলের মধ্যে সাতক্ষীরা-ভোমরাবন্দর বাইপাস সড়কের পাশেই বিদেশি ধাঁচের এমন নান্দনিক রেষ্টুরেন্ট। বিচিত্র এই রেটুরেন্টে মুখরোচক খাবারের সঙ্গে বিনোদন পেতে পরিবার-পরিজন নিয়ে ছুটে আসছেন অনেকেই।

মৌবন রেস্টুরেন্ট মালিক দেলোয়ার হোসেন বলেন, ইউটিউবের ভিডিও দেখে এই পরিকল্পনা তার মাথায় আসে। এই রেস্টুরেন্ট চালু করেছে ঈদুল আযহার মাত্র দুই দিন আগে। বাচ্চারা যেভাবে আনন্দ করছে পিতা-মাতাসহকারে সেটি দেখে আমার নিজের কাছেও ভালো লাগছে। বর্তমানে ক্রেতাদের সামাল দিতে হিমশিম খাচ্ছেন তারা।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী জাহিদ হোসেন বলেন, ঢাকায় অনেক রেস্টুরেন্ট খেয়েছি। কিন্তু এই রকম ব্যতিক্রমী বিষয় আমার চোখে পড়েনি।  সাতক্ষীরায় আমার বাড়ি পাশে এই ব্যতিক্রম রেস্টুরেন্ট গড়ে উঠেছে। সত্যিই আমি অবাক হয়েছি।

তিনি আরও বলেন, খেতে খেতে কখনও  অনুভব করছি পায়ের পাতায় কে যেন চিমটি কাটলো। নীচে তাকাতেই দেখি পা ছেড়ে পালিয়ে গেল রঙিন মাছটা। অসাধারণ অভিজ্ঞতা হলো এভাবে খাবার খেয়ে। এখানে এসে অনেক ভালো লেগেছে।

সাতক্ষীরার বকচারা এলাকায় সাত কাঠা জমিতে গড়ে তোলা ‘মৌবন’ রেষ্টুরেন্টটি সকাল ১০টা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত খোলা থাকে।