আন্তর্জাতিক করোনা ফোকাস

বিমান সংস্থাগুলোকে ভ্যাকসিন দিবে চীন

চীনের তৈরি করোনাভাইরাসের সম্ভাব্য চারটি ভ্যাকসিন এখন হিউম্যান ট্রায়ালের শেষ ধাপে রয়েছে। গত জুলাই মাসে মানুষের মধ্যে রোগ প্রতিরোধে ক্ষমতা সৃষ্টির লক্ষে সীমান্ত পরিদর্শক, সামরিক বাহিনী ও মেডিকেল খাতের কর্মীদের জন্য দেশটির সরকার কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন জরুরি ব্যবহারের অনুমোদন দেয়।

চীনের বিমান সংস্থাগুলোর, বিমানবন্দর, বিমান জ্বালানি খাত এবং ট্রাভেলস্কাই টেকনোলোজিস লিমিটেডের ফ্রন্টলাইন কর্মীদেরকে স্বেচ্ছাভিত্তিতে ভ্যাকসিন দেয়া হবে জনায় দেশটির সরকার।

ইতমধ্যে দেশটির সরকার প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী স্বেচ্ছায় ভ্যাকসিন নিতে আগ্রহী এমন কর্মীদের একটি তালিকা করে তা সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে দেয়ার জন্য চীনের বেসামরিক বিমান পরিবহন কর্তৃপক্ষকে ইতোমধ্যে নির্দেশ দিয়েছে ।

একটি নোটিশে বলা হয়, ‘আগামী শীত ও বসন্তে নতুন করে সম্ভাব্য দ্বিতীয় দফা করোনা সংক্রমণের শঙ্কার কারণে এবং মহামারি সত্ত্বেও বিমান চলাচল শুরু হওয়া পশ্চিমা দেশগুলোতে থেকে আসার মানুষদের মাধ্যমে করোনার সংক্রমণ থেকে সংশ্লিষ্ট খাতের কর্মীদের সুরক্ষিত করতেই এমন ভ্যাকসিন প্রয়োগের পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে।’

আরো পড়ুনঃ মার্কিন নির্বাচনের সাতদিন আগে নেয়া হবে না রাজনৈতিক বিজ্ঞাপনঃ মার্ক জুকারবার্গ