Bangladesh

দেওয়ানগঞ্জ প্রেমিকের হাত ধরে পালিয়ে গিয়ে ধর্ষণের শিকার

বোরহান উদ্দিন, দেওয়ানগঞ্জ প্রতিনিধি : জামালপুর জেলার দেওয়ানগঞ্জ উপজেলার ডাংধরা ইউনিয়নের জোয়ানেরচর  সরকার পাড়া গ্রামে নবম শ্রেণীর এক শিক্ষার্থী ধর্ষণের শিকার হয়েছে দুই বখাটে কর্তিক।  ঘটনাটি ঘটেছে গত ৫ অক্টোবর সোমবার রাতে। পারিবারিক সূত্রে জানা যায় ঘটনার দিন রাত আনুমানিক ১১ টার সময় প্রেমের টানে চর আমখাওয়া ইউনিয়নের   সিলেট পাড়া গ্রামের  আব্দুল কুদ্দুসের ছেলে দুই সন্তানের বাবা মোমিনুল ইসলামের সঙ্গে রাতে  পালিয়ে যায়।
গভীর রাতে টোক মাথা  বাজারের কাছে  তাদের দুজনকে দেখতে পেয়ে জোয়ানের চর গ্রামের মৃত শাহাবুদ্দিনের ছেলে মোঃ মনিরুল ইসলাম (২৩)ও সাইদুর রহমানের ছেলে আলমগীর (২২)
তারা দুইজন ছেলে মেয়েকে আলমগীরের বাড়িতে নিয়ে যায়। সেখানে প্রেমিক মমিনুল ইসলাম কে  বেঁধে রেখে প্রেমিকাকে সারারাত পালাক্রমে ধর্ষণ করে লম্পট দুইজন মনিরুল ইসলাম ও আলমগীর। ধর্ষন শেষে তাদের তিনটার দিকে ছেড়ে দেয়। প্রেমিক মমিনুল মেয়েটিকে তার বাড়িতে রেখে সে পালিয়ে যায়। মেয়েটি তার মাকে বললে পরেরদিন বাবা গ্রামের মাতব্বরদের দ্বারা একটি সালিশ বৈঠক করে। বৈঠকের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী প্রেমিক মমিনুল  কাছে  ৩০ হাজার  টাকা আদায় করে মমিনুল কে ছেড়ে দেওয়া হয় ।
৬ অক্টোবর জামালপুর আদালতের  মাধ্যমে ৭ অক্টোবর ডাক্তারি পরীক্ষা শেষে ২০০০ সালের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের ৭/৯/(৩)৩০ ধারায়  মামলা দায়ের করা হয়। মামলায় দুই ধর্ষককে আসামি করে এবং প্রেমিক মমিনুল ইসলাম কে সাক্ষী করে প্রেমিকা ধর্ষিত ছাত্রী  বাদী হয়ে মামলা দায়ের করে। এলাকাবাসীর সাংবাদিকদের জানান এই ধরনের ঘটনা যাতে পুনরাবৃত্তি না ঘটে তার জন্য সঠিক বিচার হোক। তবে আসামি পলাতক আছে বলে জানা গেছে।