Tollywood বিনোদন

অভিনেত্রী মধুমিতা বাংলাদেশি ছেলেকে বিয়ে করতে চান

অভিনেত্রী মধুমিতা বাংলাদেশি ছেলেকে বিয়ে করতে চান । অভিনেত্রী মধুমিতা সরকার বেশ কয়েকমাস ধরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সরব। প্রতিদিনই একাধিক ‘আবেদনময়ী’ ছবি পোস্ট করেন ফেসবুক-ইনস্টাগ্রামে। আর তাতেই দুই বাংলার তরুণরা বুঁদ হয়ে পড়েছেন!

মধুমিতা সরকারের নতুন ছবি মানেই ভুরি-ভুরি রিয়্যাকশন, কমেন্ট এবং শেয়ার। তার ভক্তদের মধ্যে বড় একটা অংশ বাংলাদেশের। বিশেষ করে তরুণরাই এ নায়িকার বেশ বড় ফ্যান! এরইমধ্যে বাংলাদেশি তরুণদের জন্য সুখবর দিলেন এ অভিনেত্রী। তিনি নাকি এদেশের কাউকে বিয়ে করতে চান!

চোখের মায়াতে নজর কাড়লেন শ্রীদেবী কন্যা

তবে বিষয়টি নিচকই মজা করে বলেছেন এ অভিনেত্রী! তবে এ কথা একেবারেই ফেলে দেয়ার মতো না। ২০১৫ সালে বিবাহ বন্ধনীতে আবদ্ধ হন মধুমিতা সরকার এবং পরিচালক, প্রযোজক ও অভিনেতা সৌরভ চক্রবর্তী। টলিপাড়ার অন্দরে নানা গুঞ্জনের পর তাদের বিচ্ছেদের খবরই সত্য হলো।

লাল বেশ পছন্দের রং মধুমিতার। ছবি: সংগৃহীত
লাল বেশ পছন্দের রং মধুমিতার। ছবি: সংগৃহীত

মধুমিতা জানিয়েছেন, সৌরভ খুব ভাল মানুষ। তবে দু’জনের ভাবনাচিন্তা, দৃষ্টিভঙ্গি পুরোটাই আলাদা বলেই হাজারো সমস্যা হচ্ছিল। আর সবচাইতে বড় কথা হল নতুন প্রাণ পৃথিবীতে আসার আগে আমরা আলাদা হয়ে গেছি সেটাই সবথেকে বড় বিষয়।

বাংলাদেশে আপনার অনেক ফলোয়ার; যদি নতুন সম্পর্ক গড়ার ইচ্ছে হয় তাহলে সাড়া দেবেন? উত্তরে হাসিমুখে মধুমিতা বলেন, মনের মানুষ পেলে সম্পর্ক তো গড়াই যায়। তবে দুজনের দৃষ্টিভঙ্গি এক হওয়া চাই!

এদিকে ভারতীয় এ শিল্পী ২০১৬ সালে আগস্টে বাংলাদেশের একটি টেলিছবিতে কাজ করেছেন। ভারতের মানালিতে এর কাজ হয়েছে; নাম ‘‌মেঘবালিকা’। এতে তিনি মোশাররফ করিমের বিপরীতে অভিনয় করেছেন। মহিউদ্দীন আহমেদের রচনায় এটি নির্মাণ করছেন পরিচালক পারভেজ আমিন।

সম্প্রতি মৈনাক ভৌমিকের চলচ্চিত্র ‘চিনি’র কাজ শেষ করেছেন মধুমিতা। শিগগিরই হইচই সিরিজে ‘দেবদাস ও একটি খুনের গল্প’তে কাজ করবেন তিনি। এতে তার বিপরীতে থাকছেন অর্জুন। যার সঙ্গে চলছে নায়িকার প্রেমের গুঞ্জন।