রাণীশংকৈলে শ্বশুরবাড়িতে জামাইয়ের ‘রহস্যজনক’ মৃত্যু

16

মোঃ ফরিদ হোসাইন মাসুম ঠাকুরগাঁও জেলা প্রতিনিধিঃ

ঠাকুরগাঁওয়ের রাণীশংকৈলে শ্বশুরবাড়িতে বেড়াতে গিয়ে এক ব্যক্তির রহস্য জনক মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে । মৃত ব্যক্তি দোশিয়া ভাটাপাড়া গ্রামে শ্বশুরবাড়িতে বেড়াতে গিয়ে ইবনে মিজান মুকুল (৫০) নামে এক ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে । তিনি রাণীশংকৈল পৌর শহরের ৯ নং ওয়ার্ডের মৃত মুকুল বীর মুক্তিযোদ্ধা ইয়াকুব আলীর বড় ছেলে মিজান মুকুল ।

মৃতের পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, মুকুল ও তার স্ত্রী গতকাল বুধবার রাত সাড়ে ৮ টার দিকে দোশিয়া ভাটাপাড়া গ্রামের আমিরুল ইসলামের বাড়িতে বেড়াতে যান। এরপর আনুমানিক সাড়ে ১০টার দিকে পরিবারের অন্যান্য লোকজনকে জানানো হয় মুকুল অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করে। হঠাৎ মৃত্যুর ঘটনাকে মৃতের ভাই-বোন ও চাচারা রহস্যজনক বলে মনে করছেন।

পরিবারের লোকজন অভিযোগ করে বলেন, মুকুলকে তার শ্বশুরবাড়ির লোকজন পিটিয়ে মেরে ফেলেছে। এ ঘটনায় পুলিশ এখন পর্যন্ত সঠিক রহস্য উদঘাটন করতে পারেননি।

৮ এপ্রিল বৃহস্পতিবার সকালে লাশ দাফনের জন্য সকল প্রস্তুতি ও মাইকিং সম্পন্ন হলেও পরিবারের লোকজনের অভিযোগে দাফন কার্যক্রম স্থগিত হয়ে যায়।

পরে মৃতের বাড়িতে পৌর মেয়র মোস্তাফিজুর রহমান মোস্তাক ও রাণীশংকৈল থানা অফিসার ইনচার্জ এসএম জাহিদ ইকবাল ঘটনার সঠিক রহস্য উদঘাটন করতে লাশ ময়নাতদন্তের জন্য ঠাকুরগাঁও মর্গে পাঠানোর সিদ্ধান্ত নেয়। এদিকে রানীশনকৈল স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত মেডিক্যাল ডাক্তার হেলাল জানিয়েছেন, গতকাল রাতে হাসপাতলে মুকুল নামের একজন রোগীকে নিয়ে আসা হয়। হাসপাতালে নিয়ে আসার আগেই তার মৃত্যু হয়েছে বলে তিনি নিশ্চিত করেন।

রাণীশংকৈল থানার ( তদন্ত ওসি)জানান ময়না তদন্তের প্রতিবেদন এলেই বুঝা যাবে এটি আসলে হত্যা না স্বাভাবিক মৃত্যু । মৃতের চাচা আব্দুল লতিফ বাদী হয়ে চারজনকে বিবাদী করে একটি এজাহার থানায় দিয়েছে । এটি মামলা হিসেবে রুজু করে পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে ।