সাভারে মাদরাসাছাত্রকে মারধরের অভিযোগে দুই শিক্ষককে গ্রেফতার

27

মোঃ আহসান হাবীব, সাভার প্রতিনিধি ঢাকাঃ

বুধবার ৩১ মার্চ দুপুরের পর সাভারের আশুলিয়ায় সাইফুর রহমান নামে এক মাদরাসাছাত্রকে মারধরের অভিযোগে দুই শিক্ষককে গ্রেফতার করে পুলিশ।

আদালতের মাধ্যমে তাদেরকে কারাগারে পাঠানো হয়। মঙ্গলবার ৩০ মার্চ রাত ১১টার দিকে আশুলিয়ার পল্লীবিদ্যুৎ এলাকার তাহফিজুল কোরআন হাফিজিয়া মাদরাসা থেকে দুই শিক্ষককে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতাররা হলেন- তাহফিজুল কোরআন হাফিজিয়া মাদরাসার প্রধান শিক্ষক মাওলানা আকরাম হোসেন ও তার ভাই সহকারী শিক্ষক আব্দুর রহমান নবী।

সাইফুর রহমান বাগেরহাটের শরণখোলা থানার উত্তর কদমতলা এলাকার বাসিন্দা খলিলুর রহমানের ছেলে। খলিলুর রহমান বলেন, গত তিন বছর ধরে ওই মাদরাসায় লেখাপড়া করে সাইফুর। অনেক কষ্ট করে ভ্যান চালিয়ে তার লেখাপড়ার খরচ দেই।

পরীক্ষার ফরম পূরণের কথা বলে কয়েক দিন আগে আমার কাছ থেকে ৫ হাজার টাকা নিয়ে সে হুজুরকে দিয়েছে। কিন্তু ফরম পূরণ হয়নি গত রোববার রাজধানীর টেকনিক্যালে আমার মেয়ের বাসা থেকে মাদরাসায় আসে সাইফুর।

পরে সোমবার হুজুরের কাছে ফরম পূরণ না হওয়ার কারণ জানতে চাইলে মাদরাসার প্রধান শিক্ষক ও তার ভাই আমার ছেলেকে ব্যাপক মারধর করে ঘুমের ওষুধ খাইয়ে রাখে।

পরে রাস্তার পাশে সাইফুরকে ফেলে গেলে একজন ভ্যানচালক তাকে উদ্ধার করে আমার শালিকার বাসায় নিয়ে যায়। আশুলিয়া থানা পুলিশের উপপরিদর্শক আল-মামুন কবির বলেন, অভিযোগ পাওয়ার সাথে সাথে অভিযুক্ত দুই শিক্ষকে গ্রেফতার করা হয়।

বুধবার সকালে মামলা দায়েরের পর দুপুরে আদালতের মাধ্যমে তাদের কারাগারে পাঠানো হয়।